সকল শিরোনাম

৥ সড়ক দুর্ঘটনা : মায়া কান্নায় কি লাভ? ডেমরায় ট্রাফিকের ঝটিকা অভিযান ও অপরূত কিশোরী উদ্ধার এমপি হতে শেষ চেষ্টায় মনোনয়ন প্রত্যাশীরা যারাই ক্ষমতায় আসে তারাই ক্ষমতার অপপ্রয়োগ করে: ড. কামাল রাজধানীর জলাবদ্ধতা নিরসনে ৫টি খাল খনন করবে ওয়াসা যৌন হয়রানি প্রতিরোধে খসড়া আইনের প্রস্তাব সিসি ক্যামেরার আওতায় রামপুরা ট্রাফিক জোন ঢাকা-৫ আসনে বিএনপি-আ’লীগে একাধিক প্রার্থী, সুবিধাজন অবস্থানে জাপা ফখরুলের বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিলেন রিজভী কালবৈশাখীর কারণে রূপালী ব্যা‍ংকের লিখিত পরীক্ষা বাতিল খালেদাকে জেলে রেখে নির্বাচনের কথা ভাবতে পারে না বিএনপি আগামী নির্বাচনে অংশ গ্রহন না করলে বিএনপি অস্থিত্ব সংকটে পড়বে খালেদা জিয়াকে বাদ দিয়ে জাতীয় নির্বাচন গ্রহণযোগ্য হতে পারে না নারী ও শিশু নির্যাতন কমছে না কেন? ১৫ ও ১৬ এপ্রিল ঢাকায় বিপিও সামিট উন্নয়নে সমাজের সর্বস্তরের মানুষকে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে : মেনন সরকারের পক্ষ থেকে বিভিন্ন আশ্বাসের পরও চালের দাম কমছে না অস্বস্তিতে ক্রেতারা স্বাধীনতার ইতিহাস নতুন প্রজন্মের মাঝে জাগ্রত করতে মাতুয়াইলে আলোচনা সভা উন্নয়নের নামে নদী খাল ভরাট করা যাবে না: প্রধানমন্ত্রী এখনও ৩৫ হাজার কোটি টাকা ফেরৎ দেয়নি পাকিস্তান! উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে আত্মহত্যা আবারো বাড়ছে গ্যাসের দাম মুচলেকা দিলেই সময় পাবে বিজিএমইএ ৪টি প্রতিষ্ঠানকে পুরস্কৃত করবেন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার বিকল্পে জোবাইদা রহমান, আ.লীগেও ভাগ বসাতে তৎপর


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

৥ সড়ক দুর্ঘটনা : মায়া কান্নায় কি লাভ? ডেমরায় ট্রাফিকের ঝটিকা অভিযান ও অপরূত কিশোরী উদ্ধার যৌন হয়রানি প্রতিরোধে খসড়া আইনের প্রস্তাব সিসি ক্যামেরার আওতায় রামপুরা ট্রাফিক জোন ঢাকা-৫ আসনে বিএনপি-আ’লীগে একাধিক প্রার্থী, সুবিধাজন অবস্থানে জাপা খালেদাকে জেলে রেখে নির্বাচনের কথা ভাবতে পারে না বিএনপি নারী ও শিশু নির্যাতন কমছে না কেন? উন্নয়নে সমাজের সর্বস্তরের মানুষকে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে : মেনন উন্নয়নের নামে নদী খাল ভরাট করা যাবে না: প্রধানমন্ত্রী এখনও ৩৫ হাজার কোটি টাকা ফেরৎ দেয়নি পাকিস্তান! উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে আত্মহত্যা খালেদা জিয়ার বিকল্পে জোবাইদা রহমান, আ.লীগেও ভাগ বসাতে তৎপর বিভিন্ন কলাকৌশলে বেগম জিয়ার মুক্তিকে বিলম্বিত করা হচ্ছে : ফখরুল খালেদা জিয়া দেশনেত্রী থেকে দেশের মানুষের মা হয়েছেন : নজরুল ইসলাম

উন্নয়নের নামে নদী খাল ভরাট করা যাবে না: প্রধানমন্ত্রী

ছবি স্লাইড, শীর্ষ সংবাদ, সকল শিরোনাম, সর্বশেষ সংবাদ | ১৩ চৈত্র ১৪২৪ | Tuesday, March 27, 2018

নিউজ-বাংলাদেশ, ঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন,  গঙ্গা পানি চুক্তির পর আমরা যখন গড়াই নদীর খনন শুরু করি খনন দক্ষিণাঞ্চরে লবণাক্ততা কমে যায়। কিন্তু দূর্ভাগ্য হলো ২০০১ সালে বিএনপি ক্ষমতা এসে গড়াই নদীর খননের শেষ কাজটা বাকি ছিল সেটা বন্ধ করে দিয়েছিল। সুপেয় পানি যেন অপচয় না হয় সেদিকে সবাইকে দৃষ্টি দিতে হবে। বিশুদ্ধ পানি নিশ্চিত করতে কাজ করা হচ্ছে। উন্নয়নের নামে যেন পুকুর, খাল ও নদী ভরাট না করা হয় সেদিকে দৃষ্টি দিতে হবে। বৃষ্টির পানি সংরক্ষণের ব্যবস্থা করতে হবে।

মঙ্গলবার (২৭ মার্চ) সকাল ১১টায় বিশ্ব পানি দিবস উপলক্ষ্যে বঙ্গবন্ধু সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত অনুষ্ঠানের বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় ‘পানির জন্য প্রকৃতি’।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিশুদ্ধ পানি রক্ষা করার ক্ষেত্রেই সকল পরিকল্পনা নিতে হবে। এখনো অনেক দেশে বিশুদ্ধ পানির জন্য হা হা কার। তবে আমাদের দেশে সেই অসুবিধাটা নেই। ৮৪ শতাংশের বেশি মানুষের জন্য আমরা সুপেয় পানির ব্যবস্থা করেছি। সবাইকে পুকুর, খাল ও নদী ভরাট থেকে বিরত থাকতে হবে।

শেখ হাসিনা বলেন, হিমালয় থেকে পলি এসে নদী ভরাট হয়। আবার এই পলিই ফসলের জন্য ভালো। তাই পানি ড্রেজিং করে নদীকে রক্ষা, নাব্যতা এবং নদী ভাঙন রোধ করা আমাদের সবচেয়ে বড় কাজ। বন্যার পলিমাটি দিয়ে বাংলাদেশ সৃষ্টি। আমাদের শিখতে হবে বন্যার সাথে বসবাস। বাঁধ দিলে নদীর গতিপথ হারিয়ে ফেলে। আমাদের দেশের পরিকল্পনা এমন ভাবে নেয়া উচিত যা নদী, খাল রক্ষা হবে। ১৯৯৬ সালে সরকার গঠন করার পর গঙ্গাপানির চুক্তি করে পানি আদায়ে সক্ষম হয়েছি।

তিনি বলেন, নদীর তীরে গাছ লাগিয়ে ভাঙন প্রতিরোধ করতে হবে। আমাদের ভারতের সাথে অভিন্ন নদীগুলোর জন্য কাজ করা হচ্ছে। নিজেদের ব্যবস্থা নিজেদের করতে হবে। নেদারল্যান্ডের সাথে পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে ১’শ বছরে। পানি আইন ২০১৩ প্রণয়ন করা হয়েছে। ভারত কে পরামর্শ দিয়েছি নদী ড্রেজিং করতে। ড্রেজিং করলে পানিতো গড়িয়ে আসবেই সব পানি তো ধরে রাখতে পারবে না। দক্ষিণাঞ্চলের ৩৯টি উপজেলা নোনা পানি থেকে রক্ষা পেয়েছে। গঙ্গা পানি চুক্তির পর আমরা যখন গড়াই নদীর খনন শুরু করি খনন দক্ষিণাঞ্চরে লবণাক্তা কমে যায়। কিন্তু দূর্ভাগ্য হলো ২০০১ সালে বিএনপি ক্ষমতা এসে গড়াই নদীর খনন শেষ কাজটা বাকি ছিল সেটা বন্ধ করে দিয়েছিল। আবার গড়াই নদী খনন করেছি বসুন্ধারায় আগুন লাগলে পানি পাওয়া যায় না কারণ আশেপাশে কোনো পুকুর বা খাল নেই। ঢাকার সবগুলো পুকুর ভরাট করে ভবন করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা যখন সরকার গঠন করলাম তখন ঢাকার শহর পানির জন্য হা হা কার ছিল। সুপেয় পানি যেন অপচয় না হয় সেদিকে দৃষ্টি দিতে হবে। সব বর্জ্যগুলো নদীতে ফেলা হয় সেটা দূর করার জন্য জনগণকে সচেতন করতে হবে।

তিনি বলেন, বন্যার সাথে বসবাস করার জন্য পরিকল্পনা নিতে হবে। খাদ্য উৎপাদন বাড়াতে পানির প্রয়োজন। যত কম পানিতে উৎপাদন করা যায় সেই দিকে দৃষ্টি দিতে হবে। জাতিসংঘের এসডিজি আমরা গ্রহণ করেছি। উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে আমরা এগিয়ে যাচ্ছি। দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশ। ২০৪১ সালে উন্নত সমৃদ্ধ দেশ হিসেবে গড়ে তুলবো। মনে রাখতে হবে পানির অপর নাম জীবন, বন্যা আমাদের প্রয়োজন।