সকল শিরোনাম

রূপগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধার বাড়ি দখলের চেষ্টা, বাঁধা দেওয়ায় হত্যার হুমকি দেশে নির্বাচনী দামামা যন্ত্রণাদায়ক ইনজেকশন ছাড়াই নিয়ন্ত্রণে থাকবে ডায়াবেটিস! সামরিক ব্যয়ে বিশ্বের শীর্ষ ১০ দেশ পাগল নই যথেষ্ট সুস্থ, দাবি ট্রাম্পের হার্ট ভাল রাখে,ক্যান্সারের প্রবণতা কমায় অলিভ অয়েল রাজধানীতে ফানুস ওড়ানো নিষেধ বাংলাদেশ আনসার-ভিডিপি’র সমাবেশ অনুষ্ঠিত শীতে কাঁপছে দেশ চীনা সেনাবাহিনীকে যুদ্ধের জন্য প্রস্তুতির নির্দেশ বিটুমিনের মান : দ্বন্দ্বে জড়ালো সওজ ও ঠিকাদার নির্বাচনের বছরটা কেমন যাবে? পারমাণবিক যুদ্ধ যেকোনো সময় : ধ্বংসযজ্ঞের সাক্ষী হবে বিশ্ব ‘মিস ইন্ডিয়া আসলে যৌনতা আর শরীর বিক্রির প্রতিযোগিতা’ ঢাকায় ভোট ২৫-২৬ ফেব্রুয়ারি যেমন দেখতে চাই ২০১৮ ফেরেশতা নই আবার অন্য কিছুও নই, আমি মানুষ-তারানা ইরানে সংঘর্ষে মৃতের সংখ্যা বাড়ছে ‘শত্রুদের’ দুষলেন খামেনি ৪৫ বছরে ২১ বার লোগো পরিবর্তন রূপালী ব্যাংকের স্থায়ী ক্যাম্পাসে যায়নি ৩৪ বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় শাওনের মামলার তদন্ত করবেন গোয়েন্দারা ‘ভেতরে ক্ষত অনুভব করি’ ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের মান ডিগ্রি কলেজের থেকেও দুর্বল’ বিনে পয়সায় জাপানে পড়ালেখার সুযোগ পুরুষদের ডায়াবেটিসের ১০ উপসর্গ


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

প্রযুক্তির কুপ্রভাব থেকে মুক্ত থাকতে ৫ পরামর্শ পুরুষদের ডায়াবেটিসের ১০ উপসর্গ মহাপরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামছে আ’লীগ আগামী নির্বাচনে দুর্নীতিবাজ এমপিরা মনোয়ন পাবেন না : কাদের বেওয়ারিশ পরিচয়ে জঙ্গি মারজান ও সাদ্দামের দাফন রূপগঞ্জে বেতন-ভাতার দাবিতে এম,পি’র কাছে স্বারকলিপি দিলেন পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারীরা রায় ফাঁসের মামলা : হুম্মামের জামিন নাসিক নির্বাচন : আইভীর জন্যেও অগ্নিপরীক্ষা স্বপ্নের বৃদ্ধাশ্রম হবে ‘শান্তি নীড়’ ৭২ ঘণ্টার মধ্যে খালেদা জিয়াকে গুম-হত্যার তালিকা দিতে হবে : ইনু একদিনে সাড়ে ৭ হাজার মামলা ট্রাফিক পুলিশের ডেমরায় কমিউনিটি ও বিট পুলিশিং সমাবেশ মুন্সিগঞ্জে গৃহবধূ অপহরণ মিরসরাইয়ে বাস-কাভার্ড ভ্যান সংঘর্ষে নিহত ৫ কুষ্টিয়ায় আ.লীগের দু’গ্রুপের গোলাগুলি, নিহত-২

প্রযুক্তির কুপ্রভাব থেকে মুক্ত থাকতে ৫ পরামর্শ

সকাল-বিকাল | ২০ পৌষ ১৪২৪ | Wednesday, January 3, 2018

প্রযুক্তির কুপ্রভাব থেকে মুক্ত থাকতে ৫ পরামর্শ১. ঘুমাতে যাওয়ার আগে সব ধররের ডিভাইস বন্ধ করে রাখুন
ঘুমাতে যাওয়ার আগে ইউটিউবে আরেকটু ভিডিও দেখা বা আরেকটু ফেসবুকিং করতে অনেকেরই মন চায়। বিজ্ঞানীরা বলছেন, এই প্রবণতার ফলে আপনার যে ঘুম কম হচ্ছে সেটিই নয়, বরং আপনি যেটুকু সময় ঘুমাচ্ছেন, সেটুকু সময়ও ভালোভাবে ঘুমাতে পারছেন না। ডিভাইস অন থাকলে তা প্রতি মুহূর্তে আপনার মাথায় ঘুরবে, কিংবা মনিটরের অলো চোখে পড়বে। আদর্শ ঘুমের জন্য যা অবশ্যই পরিহার করতে হবে।
এসব সমস্যা সমাধানেও ‘লাক্স ফর অ্যান্ড্রয়েড’ কিংবা ‘নিউ নাইট শিফট মোড’ নামের বিভিন্ন অ্যাপ বের হয়েছে। তবে আপনি যদি সত্যিই ঘুমানোর সময় প্রযুক্তি থেকে দূরে থাকতে চান, তাহলে এ ধরনের সব ডিভাইস বন্ধ রাখুন। বরং আপনার পছন্দের একটি বই (ইন্টারনেটে নয়) হাতে নিয়ে পড়তে পড়তে ঘুমিয়ে পড়তে পারেন।
২. একবারে একটি কাজই করুন
এখন ইন্টারনেটে নানা ধরনের কাজ করতে পারছে মানুষ। ইন্টারনেট খোলা রাখা মানে পুরো দুনিয়া আপনার সামনে উন্মুক্ত রাখা। ল্যাপটপে বা পিসিতে কাজ করার সময় আপনার সামনে একই সাথে অনেকগুলো কাজ থাকতে পারে। আপনিও হয়তো চাপ কমাতে মেইল লেখার পাশাপাশি ফেসবুকে একটু গুরুত্বপূর্ণ আলোচনায় অংশ নিচ্ছেন। কিংবা অন্য জায়গায় কাউকে গুরুত্বপূর্ণ দিক নির্দেশনা দিচ্ছেন। আপনার মনে হতে পারে আপনি একসাথে অনেকগুলো কাজ করছেন, আপনি অনেক উত্পাদনক্ষম। কিন্তু বিষয়টি মোটেও তা নয়। ধরুন, আপনি একটি উত্তেজনাকর ফুটবল ম্যাচ দেখছেন। কিন্তু কিছুক্ষণ পরপর ফেসবুকে সেটির আপডেট দিচ্ছেন বা ফেসবুকিং করছেন, তাহলে কী ম্যাচের সঠিক মজাটা আপনি পাবেন? আপনি একবারে একটি কাজ করলে যতটা সফলতার সঙ্গে করতে পারবেন, অনেকগুলো কাজ এক সঙ্গে করলে কোনোটিতেই আশানুরূপ ফলাফল নাও পেতে পারেন। সফলভাবে অনেকগুলো কাজ করতে চাইলে সবগুলো কাজের জন্য আলাদা অলাদাভাবে সময় ভাগ করে নিন। এতে আপনার মস্তিষ্কও প্রতিটি বিষয়ের উপর আলাদাভাবে কাজ করতে পারবে।
৩. স্ক্রিন সবসময় আই লেভেলে রাখুন
মাথা নিচের দিকে ঝুঁকিয়ে মোবাইল ব্যবহার করা কিংবা সামনের দিকে ঝুঁকে ল্যাপটপ ব্যবহার করার কারণে অনেক সময় শরীরে নানা সমস্যা দেখা দেয়। চোখব্যথা, মাথাব্যথা, কোমর ব্যথা- স্ক্রিন আসক্ত মানুষের জন্য এসব সমস্যা এখন নিয়মিতই হয়ে গেছে। সব সময় আই লেভেলে স্ক্রিন রেখে কাজ করাটা হয়তো সম্ভব হবে না, তবে আপনি এটি করতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করবেন। এতে আপনার চোখ এবং স্পাইনের উপর চাপ অনেক কমবে। হাঁটতে হাঁটতে মেসেজিং বন্ধ করুন।
অফিস বা বাসায় আপনার মনিটর যদি আই লেভেলে না থাকে, তাহলে আলাদা স্ট্যান্ড নিন। ল্যাপটপ ব্যাবহার করলে আলাদা কীবোর্ড ব্যাবহার করে ল্যাপটপ দূরে রেখে তারপর কাজ করুন।
৪. সামাজিক মাধ্যম ব্যবহার থেকে কিছুটা সময় বিরত থাকুন
ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রামসহ অন্যান্য সামাজিক মাধ্যম বন্ধুদের কাছ থেকে নতুন কোনো আপডেটের তাড়নায় আপনাকে সবসময় টানবে। আপনি গুরুত্বপূর্ণ একটা কাজ করছেন, কিংবা বন্ধুদের সাথে আড্ডা দিচ্ছেন কিংবা বিশ্রাম নিচ্ছেন, কিন্তু বারবার ফেসবুকে ঢুকে ভার্চুয়াল বন্ধুদের আপডেট চেক করতে মন চাচ্ছে, এটা হরহামেশায়ই অধিকাংশের ক্ষেত্রে হয়। সামাজিক মাধ্যম থেকে দূরে থাকার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে না, কিন্তু আপনার সময় ঠিকভাবে বিন্যস্ত করতে জনাতে হবে। যখন যে কাজটি করবেন, তখন শুধুমাত্র সে কাজটিউ করুন। বিশ্রামের সময় ফেসবুক নয়, ফেসবুকিংয়ের সময়েও অন্য কাজ নয়।
৫. অনলাইন অ্যাকাউন্ট সবসময় নিরাপদ রাখুন
প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধই উত্তম। আপনার ইন্টারনেট অ্যাকাউন্টগুলো ম্যানেজের ক্ষেত্রে পুরনো এ কথা মেনে চলুন। অ্যাকাউন্টের সামান্য নিরাপত্তা দুর্বলতার কারণে আপনার অনেক বড় ক্ষতি হয়ে যেতে পারে বা আপনাকে অনেক ভুগতে হতে পারে। তাই ইন্টারনেট অ্যাকাউন্টগুলোতে সবসময় প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা নিশ্চিত করে রাখুন। আর সব ব্যক্তিগত তথ্য ইন্টারনেটে শেয়ার করাও উচিত নয়। ব্যক্তিগত তথ্য যত কম ইন্টারনেটে শেয়ার করবেন, জীবন তত নিরাপদ থাকবে।