সকল শিরোনাম

রূপগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধার বাড়ি দখলের চেষ্টা, বাঁধা দেওয়ায় হত্যার হুমকি দেশে নির্বাচনী দামামা যন্ত্রণাদায়ক ইনজেকশন ছাড়াই নিয়ন্ত্রণে থাকবে ডায়াবেটিস! সামরিক ব্যয়ে বিশ্বের শীর্ষ ১০ দেশ পাগল নই যথেষ্ট সুস্থ, দাবি ট্রাম্পের হার্ট ভাল রাখে,ক্যান্সারের প্রবণতা কমায় অলিভ অয়েল রাজধানীতে ফানুস ওড়ানো নিষেধ বাংলাদেশ আনসার-ভিডিপি’র সমাবেশ অনুষ্ঠিত শীতে কাঁপছে দেশ চীনা সেনাবাহিনীকে যুদ্ধের জন্য প্রস্তুতির নির্দেশ বিটুমিনের মান : দ্বন্দ্বে জড়ালো সওজ ও ঠিকাদার নির্বাচনের বছরটা কেমন যাবে? পারমাণবিক যুদ্ধ যেকোনো সময় : ধ্বংসযজ্ঞের সাক্ষী হবে বিশ্ব ‘মিস ইন্ডিয়া আসলে যৌনতা আর শরীর বিক্রির প্রতিযোগিতা’ ঢাকায় ভোট ২৫-২৬ ফেব্রুয়ারি যেমন দেখতে চাই ২০১৮ ফেরেশতা নই আবার অন্য কিছুও নই, আমি মানুষ-তারানা ইরানে সংঘর্ষে মৃতের সংখ্যা বাড়ছে ‘শত্রুদের’ দুষলেন খামেনি ৪৫ বছরে ২১ বার লোগো পরিবর্তন রূপালী ব্যাংকের স্থায়ী ক্যাম্পাসে যায়নি ৩৪ বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় শাওনের মামলার তদন্ত করবেন গোয়েন্দারা ‘ভেতরে ক্ষত অনুভব করি’ ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের মান ডিগ্রি কলেজের থেকেও দুর্বল’ বিনে পয়সায় জাপানে পড়ালেখার সুযোগ পুরুষদের ডায়াবেটিসের ১০ উপসর্গ


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

নির্বাচন স্থগিতে বিএনপিকে অভিযুক্ত করা উচিত: হানিফ দেশে নির্বাচনী দামামা নির্বাচনের বছরটা কেমন যাবে? ফেরেশতা নই আবার অন্য কিছুও নই, আমি মানুষ-তারানা মহাপরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামছে আ’লীগ শেখ হাসিনা বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘস্থায়ী নারী শাসক শুভ জন্মদিন প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা -নূরুন্নবী চৌধুরী শাওন ইউরোপ থেকে অবৈধ বাংলাদেশিদের ফেরত আনতে চুক্তির খসড়া চূড়ান্ত সরকার অবাধ তথ্য প্রবাহে বিশ্বাস করে : প্রধানমন্ত্রী দেশে আল্লাহর গজব পড়েছে: এরশাদ ‘গাড়ির চাপ দেখলেই মন্ত্রী-এমপিদের ধৈর্য মানে না’ বাংলাদেশকে সমর্থন দেবে থাইল্যান্ড চালের দাম নিয়ন্ত্রণে আসছে না কেন? ব্যাংকিং খাতে অর্থমন্ত্রীর ‘পাপ কর’!

মহাপরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামছে আ’লীগ

জাতীয় সংবাদ, সকাল-বিকাল | ২০ পৌষ ১৪২৪ | Wednesday, January 3, 2018

 

---সফিকুল ইসলাম

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত রোববার যশোরে আগামী নির্বাচনে নৌকা মার্কায় ভোট চেয়ে দলের পক্ষে অঘোষিত প্রচারণা শুরু করেছেন। এটি একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে মহাপরিকল্পনার নিয়ে মাঠে নামছে সরকারি দল আওয়ামী লীগ। সেদিক থেকে নির্বাচনী প্রচারণা এ নতুন বছরের প্রথম থেকেই প্রধানমন্ত্রী রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমামের নেতৃত্বে মহাপরিকল্পনার প্রস্তুতি পর্ব শুরু হয়েছে। যার অন্যতম অংশ হচ্ছে ব্যাপক জনসংযোগ। আওয়ামী লীগের প্রথম সারির নেতারা এতে একযোগে যোগ দেবেন।

নির্বাচন কমিশন ২০১৮ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে নির্বাচনের ঘোষণা দিয়েছে। সেপ্টেম্বর থেকেই নির্বাচনী প্রচার

কার্যক্রম শুরু হবে। তার আগেই দলকে নির্বাচন উপযোগী করে তুলতে যা যা দরকার তা নেয়া হচ্ছে। গড়ে তোলার প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে এ মহাপরিকল্পনায়। বছরের শুরু থেকেই সারাদেশে সাংগঠনিক সফর শুরু করবেন আওয়ামী লীগের নেতারা। তৃণমূল নেতাকর্মীদের সাথে কথা বলে আগামী নির্বাচনে সম্ভাব্য প্রার্থীদের যাচাই বাছাই করবেন তারা। সম্ভাব্য প্রতিপক্ষ প্রার্থীদের জনপ্রিয়তা জানবেন। সেই সাথে দলের অভ্যন্তরীণ দ্বন্দ্ব-বিরোধ মেটানোর চেষ্টা করবেন। এরই এক পর্যায়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নির্বাচন পরিচালনা কমিটি গঠন করে নির্বাচনী ইশতেহার তৈরি করবে। পাশাপাশি কেন্দ্রভিত্তিক কমিটি গঠন করা হবে। প্রশিক্ষণ দেয়া হবে পোলিং এজেন্টদের। সরকারের উন্নয়নচিত্র সম্পর্কে বিশদ ধারণা ভোটারদের সামনে উপস্থাপনে অন্যতম দিক হিসেবে থাকবে মহাপরিকল্পনাতে। পার্থক্য তুলে ধরা হবে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির শাসনামলে বিভিন্ন খাত ও দিক নিয়ে।

একই সাথে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কয়েকটি জেলা ও উপজেলায় জনসংযোগে যাবেন। নির্বাচনে দলের চূড়ান্ত প্রার্থী বাছাই, নির্বাচনকেন্দ্রিক অন্তর্দ্বন্দ্ব নিরসন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দুর্নীতি মামলার রায়-পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলা এবং সরকার বিরোধী সম্ভাব্য আন্দোলন নিয়ে দলের নেতাকর্মীদের প্রস্তুত করে তুলবেন তিনি। একই সাথে শেখ হাসিনা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমেও জনগণের পাশাপাশি তৃণমূল নেতাকর্মীদের সাথে মতবিনিময় করবেন। প্রধানমন্ত্রী দীর্ঘদিন ধরে যেসব জেলা এবং উপজেলায় যাননি, এবার সেসব জায়গায় যাবেন তিনি। তৃণমূল নেতাদের সাথে একান্তে বৈঠকও করবেন। স্থানীয় নেতাদের সুনির্দিষ্ট দিকনির্দেশনা দেবেন। এর আগে জানুয়ারি থেকে কেন্দ্রীয় নেতারা জেলা ও উপজেলায় জনসংযোগ করবেন। থাকছে ধারাবাহিক কর্মসূচি। সভাপতিম-লীর ১৫ সদস্যের নেতৃত্বে কমপক্ষে ১৫টি গ্রুপ তৃণমূল পর্যায়ে জনসংযোগে অংশ নেবে। আন্দোলনের নামে বিএনপি-জামায়াতের জ্বালাও-পোড়াওসহ ধ্বংসাত্মক রাজনীতির বিষয়টিও আলোচনার অংশ হয়ে থাকবে। ইতিমধ্যে আগামী নির্বাচন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জরিপ করেছেন। এতে ২০০৮ সালের নির্বাচনের চেয়ে বেশি আসনে জয় পাওয়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে ১৪দলীয় জোটের প্রধান শরিক আওয়ামী লীগে। দলীয় কোন্দল দুশ্চিন্তার প্রধান কারণ হয়ে উঠেছে। মনোনয়ন নিয়ে প্রায় প্রতিটি আসনেই এমপিদের সাথে সংরক্ষিত নারী আসনের এমপি, উপজেলা চেয়ারম্যান ও মেয়রদের বিরোধের চিত্র মুছে ফেলতে হবে কেন্দ্রীয় নেতাদের। প্রয়োজনে অন্তর্দ্বন্দ্বে জড়িত নেতাদের ঢাকায় তলব করা হবে। বিষয়টি নিয়ে উদ্বেগ রয়েছে প্রধানমন্ত্রীর। দলের নেতাকর্মীদের বিষয়টি নিয়ে সতর্ক থাকার নির্দেশ দিয়েছেন। আগামী ৫ জানুয়ারি দেশজুড়ে গণতন্ত্রের বিজয় দিবস পালন করা হবে। ঢাকা দক্ষিণ মহানগর আওয়ামী লীগ বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে এবং ঢাকা উত্তর মহানগর আওয়ামী লীগ গুলশানে জনসভা করবে।