সকল শিরোনাম

.রূপগঞ্জে পিএসসি পরীক্ষায় অনিয়মের অন্ত:নেই স্বপ্ন-সুখের সংসার করা হলোনা রিমুর : ডেমরায় প্ররোচনায় পড়ে গলায় ফাঁস দিয়ে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা ডেমরায় পঙ্গুদের মাঝে হুইল চেয়ার ও ক্রাচ বিতরণ শেখ হাসিনা বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘস্থায়ী নারী শাসক ধর্মের নামে একটি কুচক্রিমহল শিক্ষিতযুবকদের ভুলপথে নেয়ার ষড়যন্ত্রে মেতে উঠেছে: হাবিবুর রহমান মোল্লা এমপি আল-রাফি হাসপাতালের উদ্যোগে চিকিৎসকদল রোহিঙ্গা ক্যাম্পে শুভ জন্মদিন প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা -নূরুন্নবী চৌধুরী শাওন চলন্ত বাসে গণধর্ষণ করে হত্যার লোমহর্ষক বর্ণনা: আদালতে স্বীকারোক্তি ইউরোপ থেকে অবৈধ বাংলাদেশিদের ফেরত আনতে চুক্তির খসড়া চূড়ান্ত রোহিঙ্গা গণহত্যা বন্ধে আসিয়ানকে ভূমিকা নেওয়ার আহবান থমকে গেছে বিএনপি ঈদে আসছে রনি’র মিউজিক ভিডিও “কোরবানি” সীতাকুণ্ডে অজ্ঞাত রোগে ৯ জনের মৃত্যু সরকার দেশের পরিবেশ ও মানুষকে ধ্বংসের দিকে ঠেলে দিচ্ছে: রিজভী সরকার অবাধ তথ্য প্রবাহে বিশ্বাস করে : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নের মহাসড়কে এগিয়ে চলেছ ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রনে বাংলাদেশের বিজ্ঞানীর বিশ্ব অবাক করা আবিষ্কার ‌‘দেশকে অস্থিতিশীল করার চক্রান্ত চলছে’ দেশে আল্লাহর গজব পড়েছে: এরশাদ দুই নগরে নৌকা চাই… বাহ! ভালইতো… ঢাকায় প্রতি ১১ জনের একজন চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত ‘গাড়ির চাপ দেখলেই মন্ত্রী-এমপিদের ধৈর্য মানে না’ বাংলাদেশকে সমর্থন দেবে থাইল্যান্ড ‘মুসলিমরা ডোনাট খায় না’ গুজবের নেপথ্যে


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

স্বপ্ন-সুখের সংসার করা হলোনা রিমুর : ডেমরায় প্ররোচনায় পড়ে গলায় ফাঁস দিয়ে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা ডেমরায় পঙ্গুদের মাঝে হুইল চেয়ার ও ক্রাচ বিতরণ শেখ হাসিনা বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘস্থায়ী নারী শাসক ধর্মের নামে একটি কুচক্রিমহল শিক্ষিতযুবকদের ভুলপথে নেয়ার ষড়যন্ত্রে মেতে উঠেছে: হাবিবুর রহমান মোল্লা এমপি আল-রাফি হাসপাতালের উদ্যোগে চিকিৎসকদল রোহিঙ্গা ক্যাম্পে শুভ জন্মদিন প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা -নূরুন্নবী চৌধুরী শাওন ইউরোপ থেকে অবৈধ বাংলাদেশিদের ফেরত আনতে চুক্তির খসড়া চূড়ান্ত থমকে গেছে বিএনপি শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নের মহাসড়কে এগিয়ে চলেছ ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রনে বাংলাদেশের বিজ্ঞানীর বিশ্ব অবাক করা আবিষ্কার দেশে আল্লাহর গজব পড়েছে: এরশাদ দুই নগরে নৌকা চাই… ঢাকায় প্রতি ১১ জনের একজন চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত ‘গাড়ির চাপ দেখলেই মন্ত্রী-এমপিদের ধৈর্য মানে না’ বাংলাদেশকে সমর্থন দেবে থাইল্যান্ড

ঢাকায় প্রতি ১১ জনের একজন চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত

ছবি স্লাইড, সকল শিরোনাম, সর্বশেষ সংবাদ | ২৪ আষাঢ় ১৪২৪ | Saturday, July 8, 2017

বাংলাদেশের রোগতত্ত্ব ও রোগ নিয়ন্ত্রণ এবং গবেষণা ইনস্টিটিউটের সাম্প্রতিক একটি জরিপে জানা যায়, ঢাকার প্রায় প্রতি ১১ জনের একজন চিকুনগুনিয়া ভাইরাসে আক্রান্ত। প্রায় একদশক ধরে বাংলাদেশে রোগটি দেখা দিলেও এবারের মতো প্রকোপ দেখা যায়নি।

 

এই রোগে প্রচ- জ্বর থেকে ওঠার পরও শরীরে ব্যথা থেকে যায় দীর্ঘদিন। সাধারণ মানুষের মধ্যে কতটা ভোগান্তির কারণ হয়েছে চিকুনগুনিয়া। বিবিসি বাংলা।

 

চিকুনগুনিয়া ভাইরাসে আক্রান্তদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ভোগান্তিতে পড়েছেন নিম্ন আয়ের মানুষজন, বিশেষ করে যাদের প্রতিদিনকার আয়ের ওপর নির্ভর করতে হয়।

 

ঢাকার গ্রিনরোডের এক মুদি দোকানদার মো. মকবুল বলছেন, আমি চিকুনগুনিয়া রোগে ১৫ দিন বিছানায় ছিলাম। দোকান চালাতে পারিনি, আয়-রোজগার বন্ধ হয়ে গেছে। ঋণ করে এতদিন চলেছি, প্রায় ১৫ হাজার টাকা দেনা হয়ে গেছি।

 

একটি দোকানের বিক্রয়কর্মী ফাইজুল বলছেন, একবার জ্বর হয়ে যাওয়ার পর এখন আবার শরীর খারাপ হয়েছে। অনেকদিন কাজে কামাই করেছি, গত দুদিন ধরে কাজে যেতে পারছি না। একদিন যেতে না পারলে বেতন কেটে রাখে।

 

এ রোগের শিকার হওয়ার পর অনেকদিন নিজের কাজে যেতে পারেননি ঢাকার গ্রিনরোডের মাজেদা বেগম। একই সময়ে আক্রান্ত হয়েছিলেন তার স্বামীও।

 

মাজেদা বেগম বলেন, আমি বাসায় কাজ করি। জ্বর হওয়ার পর দশ-বারোদিন কাজে যেতে পারিনি। একটু ভালো হয়ে তিন-চারদিন গেছি। এরপর আবার যেতে পারিনি। এ জন্য আমার দুটি কাজ চলে গেছে।

 

তবে এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে সমাজের সব শ্রেণিপেশার মানুষ।

 

একদিন সকালে হঠাৎ করেই এনজিওকর্মী রুথ লিপিকা হিরা বুঝতে পারেন, তিনি চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত। পনেরো দিন অসুস্থ থাকার পর, এখনো তিনি পুরোপুরি সুস্থ হতে পারেননি।

 

তিনি বলছেন, একদিন সকালে উঠে বুঝতে পারি, আমার প্রচ- জ্বর এসেছে, শরীরে ব্যথা। এরপর ১৫ দিন বিছানায় পড়ে থাকতে হয়েছে। পরে মুখে র‌্যাশ উঠেছে। এখনো শরীরে অনেক ব্যথা, হাঁটুতে ব্যথা হয়।

 

রুথ লিপিকা হিরা বলছেন, যেদিন অসুস্থ হলাম, সেদিন অফিসে জরুরি মিটিং ছিল। কিন্তু ছুটি নিতে হয়েছে। আর এখন কাজে ফিরে এতদিনের সব কাজ একসঙ্গে করতে হচ্ছে।

 

তবে শুধু যারা আক্রান্ত হয়েছেন তারাই নন, পরিবারের সবাই অসুস্থ হয়ে পড়ায় ঝড় যাচ্ছে পরিবারপ্রধানদের ওপর দিয়েও। এ রকম একজন মো. আলম, যার স্ত্রী ও দুই মেয়ে এ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন।

 

মো. আলম বলছেন, বাড়ির লোকজন সবাই অসুস্থ। আমি তাদের দেখব নাকি কাজে যাব, তাই বুঝছি না।

 

ঢাকার গ্রিন লাইফ হাসপাতালের সহকারী পরিচালক, ডা. নাজিয়া হক বলছেন, গত কয়েকমাসে অন্য জ্বরের রোগীর তুলনায় চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত রোগীই তাদের কাছে বেশি আসছে। ডেঙ্গু রোগের বাহন এডিস মশাই চিকুনগুনিয়া রোগেরও কারণ। এখনো এ রোগের পুরোপুরি প্রতিকার আবিষ্কৃত হয়নি।

 

রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের পরিচালক মিরজাদি সাবরিনা ফোরা বলেন, ২০০৮ সাল থেকে রোগটি বাংলাদেশে শনাক্ত হলেও, এ বছরই সবচেয়ে বেশি প্রকোপ দেখা যাচ্ছে। তিনি বলছেন, মোবাইল নাম্বারের ভিত্তিতে আমরা ৪ হাজার মানুষের মধ্যে একটি জরিপ করেছি। এখনো সেই জরিপের ফল চূড়ান্ত হয়নি, পর্যালোচনা চলছে, তবে একটি ধারণা দিতে পারি। এ চার হাজার লোকের মধ্যে ৩৫৭ জন চিকুনগুনিয়া আক্রান্ত হয়েছেন। এ থেকে হয়তো ধারণা করতে পারেন, কত শতাংশ মানুষ রোগটিতে আক্রান্ত হয়েছে।

 

তাদের ধারণা, বৃষ্টি যতদিন থাকবে, অর্থাৎ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এ রোগের প্রকোপ থাকতে পারে।

 

চিকিৎসকরা বলছেন, ততদিন মশা থেকে সতর্কতাই, যেমন মশারি বা ওষুধ ব্যবহার করাই হবে এ থেকে রার সবচেয়ে ভালো উপায়।

 

বৃষ্টির পর যাতে পানি জমে থাকতে না পারে, যেখানে মশা ডিম পাড়তে পারে, সেদিকেও নজর দিতে তারা পরামর্শ দিয়েছেন।