সকল শিরোনাম

.রূপগঞ্জে পিএসসি পরীক্ষায় অনিয়মের অন্ত:নেই স্বপ্ন-সুখের সংসার করা হলোনা রিমুর : ডেমরায় প্ররোচনায় পড়ে গলায় ফাঁস দিয়ে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা ডেমরায় পঙ্গুদের মাঝে হুইল চেয়ার ও ক্রাচ বিতরণ শেখ হাসিনা বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘস্থায়ী নারী শাসক ধর্মের নামে একটি কুচক্রিমহল শিক্ষিতযুবকদের ভুলপথে নেয়ার ষড়যন্ত্রে মেতে উঠেছে: হাবিবুর রহমান মোল্লা এমপি আল-রাফি হাসপাতালের উদ্যোগে চিকিৎসকদল রোহিঙ্গা ক্যাম্পে শুভ জন্মদিন প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা -নূরুন্নবী চৌধুরী শাওন চলন্ত বাসে গণধর্ষণ করে হত্যার লোমহর্ষক বর্ণনা: আদালতে স্বীকারোক্তি ইউরোপ থেকে অবৈধ বাংলাদেশিদের ফেরত আনতে চুক্তির খসড়া চূড়ান্ত রোহিঙ্গা গণহত্যা বন্ধে আসিয়ানকে ভূমিকা নেওয়ার আহবান থমকে গেছে বিএনপি ঈদে আসছে রনি’র মিউজিক ভিডিও “কোরবানি” সীতাকুণ্ডে অজ্ঞাত রোগে ৯ জনের মৃত্যু সরকার দেশের পরিবেশ ও মানুষকে ধ্বংসের দিকে ঠেলে দিচ্ছে: রিজভী সরকার অবাধ তথ্য প্রবাহে বিশ্বাস করে : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নের মহাসড়কে এগিয়ে চলেছ ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রনে বাংলাদেশের বিজ্ঞানীর বিশ্ব অবাক করা আবিষ্কার ‌‘দেশকে অস্থিতিশীল করার চক্রান্ত চলছে’ দেশে আল্লাহর গজব পড়েছে: এরশাদ দুই নগরে নৌকা চাই… বাহ! ভালইতো… ঢাকায় প্রতি ১১ জনের একজন চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত ‘গাড়ির চাপ দেখলেই মন্ত্রী-এমপিদের ধৈর্য মানে না’ বাংলাদেশকে সমর্থন দেবে থাইল্যান্ড ‘মুসলিমরা ডোনাট খায় না’ গুজবের নেপথ্যে


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

‘মুসলিমরা ডোনাট খায় না’ গুজবের নেপথ্যে কিডনি ক্যান্সার প্রতিরোধ করবে টমেটো যে মুরগির পালক-রক্ত সবই কালো ফ্যাশনে স্বাধীনতার চেতনা কুলাঙ্গার সন্তানের বিরুদ্ধে আদালতের রায় গার্লফ্রেন্ডের শরীরে অজগর ছেড়ে উল্লাশ বয়ফ্রেন্ডের! রায় ফাঁসের মামলা : হুম্মামের জামিন ‘সত্যিকারের মানুষ’ হয়ে ফিরছেন সেই হ্যাপি! বাসন্তী রঙের শাড়িতে…. রূপগঞ্জে প্রধান শিক্ষকের অপসারন ও শাস্তির দাবীতে এলাকাবাসীর মানববন্ধব ও ঝাড়ু মিছিল বন্ধের পথে পাটকল! শ্রমিক ঝুঁকছে গার্মেন্টস শিল্পে স্তব্ধ হলো মানবতা! নারী নির্যাতন বন্ধে সরকারের প্রতিশ্রুতি থাকতে হবে : সালমা আলী মাহি এখন লন্ডনে এক্সট্রা গ্লোয়িং ত্বক পেতে যা করবেন

কুলাঙ্গার সন্তানের বিরুদ্ধে আদালতের রায়

এক্সক্লুসিভ, ছবি স্লাইড, সকল শিরোনাম, সর্বশেষ সংবাদ | ৫ চৈত্র ১৪২৩ | Sunday, March 19, 2017

---যে সন্তানরা নিজের বাবা-মায়ের সঙ্গে একই বাড়িতে থেকে তাদের সঙ্গেই দুর্ব্যবহার করেন, তাদের বাড়ি থেকে ঘাড়ধাক্কা দিয়ে বের করে দিতে পারেন অভিভাবকেরা। এক্ষেত্রে সম্পত্তির ভাগ থেকেও তাদের বঞ্চিত করা হতে পারে।

এক্ষেত্রে সেই বাড়িটি বাবা-মায়ের নামেই হতে হবে অথবা তাদের নামে থাকতে হবে এমন কোনও মানে নেই। দিল্লি হাইকোর্টের বিচারপতি মনমোহন এমনই নির্দেশ শুনিয়েছেন।

এক মামলায় রায় শোনাতে গিয়ে বিচারপতি মনমোহন বলেছেন, যতক্ষণ বাবা-মায়ের সম্পত্তির উপরে আইনি অধিকার রয়েছে, তারা তাদের সাবালক সন্তানদের বাড়ি থেকে বের করে দিতে পারেন। কারণ নানা রায়ে বারবার উল্লেখ করা হয়েছে যে বরিষ্ঠ নাগরিকদের শান্তিতে ও সম্মানের সঙ্গে বাঁচার পূর্ণ অধিকার রয়েছে।

দিল্লির এক প্রাক্তন পুলিশকর্মী ও তার ভাইকে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়া হয়। দুজনে তাদের বৃদ্ধ বাবা-মায়ের সঙ্গে থাকতেন। তাদের উপরে অত্যাচারের অভিযোগ ওঠে দুজনের বিরুদ্ধে। বাড়ি থেকে বের করে দেওয়া নিয়ে আদালতে মামলা করলে সেই রায়ের প্রেক্ষিতেই ৫১ পাতার রায়ে আদালত জানিয়েছে, দুই ভাই তাদের বৃদ্ধ বাবা-মাকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করতেন। এক্ষেত্রে দশ বছর আগে বয়স্কদের সুস্থ জীবন নিশ্চিত করতে তৈরি করা আইনে স্পষ্ট বলা হয়েছে, প্রতিটি বয়স্ক নাগরিককে সুস্থভাবে ও শান্তিতে বাঁচার অধিকার রয়েছে। ফলে ছেলে-মেয়ে যিনিই এই শান্তি ভঙ্গের চেষ্টা করবে তাকে বাড়ি থেকে বের করায় কোনও আইনি বাধা থাকবে না। কারণ এর সঙ্গে বৃদ্ধ নাগরিকদের সুস্থভাবে বেঁচে থাকার মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় জড়িয়ে রয়েছে। এর পাশাপাশি দিল্লি সরকারকে উচ্চ আদালত নির্দেশ দিয়েছে একটি অ্যাকশন প্ল্যান তৈরি করে বয়স্ক নাগরিকদের সুরক্ষিত জীবন দিতে হবে। তারা যাতে ভয়হীন ও নিঃসঙ্কোচে জীবন অতিবাহিত করতে পারে তা নিশ্চিত করতেও আদালত সরকারকে নির্দেশ দিয়েছে।

- ইন্টারনেট