সকল শিরোনাম

সেবা খাতে ঘুষ-দুর্নীতি বন্ধ হবে কবে? কেন সাংবাদিক নির্যাতন? সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত্যুর সর্বোচ্চ সাজা ৫ বছরের জেল রূপগঞ্জে গাজা ও ইয়াবাসহ শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার আসামের তালিকা নিয়ে বাংলাদেশের দুশ্চিন্তার কোনো কারণ নেই: ভারতীয় হাইকমিশনার প্রধানমন্ত্রী বললে পদত্যাগ করব : নৌমন্ত্রী শিশুরা আমাদের চোখ-কান খুলে দিয়েছে : মনিরুল শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নিলেন প্রধানমন্ত্রী তারকারা রাস্তায় পুলিশের নামে মামলা দিতে সার্জেটকে বাধ্য করলো শিক্ষার্থীরা আন্দোলনও থামুক; সড়কও নিরাপদ হউক দু:স্থদের মাঝে বিসিএস পুলিশ পরিবারের ঈদ বস্ত্র বিতরণ ৬ কারণে বিশ্বকাপ জিতবে ব্রাজিল সবার জন্য স্বাস্থ্য প্রধানমন্ত্রীর কানাডা সফর ৬ জুন  দ্রব্যমূল্য বাড়ার মাস কী রমজান! সবকিছু স্বপ্নের মতো মনে হচ্ছে লিখিত স্থগিতাদেশ পেলে গাজীপুর সিটি নির্বাচনের জন্য আপিল করা হবে : অ্যাটর্নি জেনারেল সৌহার্দ্যপূর্ণ আন্তঃবাহিনী সম্পর্ক বজায় রাখার আহবান আইজিপির গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচন ২৬ জুন বিজ্ঞানমনস্ক জ্ঞানভিত্তিক সমাজ বিনির্মানে শিক্ষকদের ভূমিকা শীর্ষক কর্মশালা নির্বাচনী মাঠে একঝাঁক তরুণ মনোনয়নপ্রত্যাশী দলের নয়, কাজের লোককে ভোট দিন: ওবায়দুল কাদের খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা আগের চেয়েও উদ্বেগজনক নির্বাচনী প্রচারণায় ঘুম নেই ঢাকা দক্ষিনের প্রার্থীদের


জিমন্যাস্টিক খেলতে গিয়ে ভেঙ্গে গেল পা

খেলাধুলা, ছবি স্লাইড | ২৪ শ্রাবণ ১৪২৩ | Monday, August 8, 2016

 

সামির আইত এবারের অলিম্পিকের দুর্ভাগ্যের একটি নাম। পদক জয়ের আশায় লড়তে গিয়ে নিজের পা’টাই ভেঙ্গে ফেললেন ফ্রান্সের এই অ্যাথলেট। সমস্ত স্বপ্ন এক নিমিষেই ভেঙ্গে যায় তার। ক্যারিয়ারও এখণ পড়ে গেছে শংকায়। পুরুষ বাছাইয়ে জিমন্যাস্টিক খেলতে গিয়ে পুরো দেহের ভার এক পায়ের উপর দিয়ে রাখেন। কিন্তু শরীরের ভার বেশিক্ষণ বইতে না পারায় সামিরের বাঁ-পা ভেঙ্গে যায়। পা এমনভাবে ভেঙ্গেছে যে সোজা হয়ে দাঁড়ালে একটি পা’ই দুইভাগে ভাগ করা যাবে।

 

 

অর্থাৎ ভবিষ্যতে জিমন্যাস্টিক খেলতে পারবেন কিনা তা নিয়েই দেখা দিয়েছে সন্দেহ। দুর্ঘটনার পর রীতিমত কেঁদে ফেলেন সামির। অনেক আশা অনেক স্বপ্ন নিয়ে এবারের অলিম্পিকে অংশ নিয়েছিলেন ফ্রান্সের এই অ্যাথলেট। কিন্তু শুন্য হাতে বাড়ি তো ফিরতেই হচ্ছে পাশাপাশি ক্যারিয়ারও ধ্বংস হয়ে গেল। এই ভাবনাটি তাকে কুড়ে কুড়ে খাঁচ্ছে। স্ট্রেচারে শুয়ে যখন ট্র্যাক থেকে তাকে বাইরে নিয়ে যাওয়া হয় তখন তার চোখ দিয়ে অশ্রু পড়ছিল। এমনভাবে অলিম্পিক শেষ করতে হবে তা যেন তার কাছে অজানাই ছিল।

 

২০১০ সাল থেকে এ পর্যন্ত ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের জিমন্যাস্টিক ইভেন্টে স্বর্ণ, রৌপ্য ও বোঞ্জ পদক সবই জিতেছিলেন সামির। কিন্তু অলিম্পিকে এখনো জেতা হয়নি। সেই স্বপ্ন ছিল এবার। কিন্তু ২৬ বছর বয়সী এই অ্যাথলেট এখন হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে ব্যথায় কাতরাচ্ছেন।