সকল শিরোনাম

সেবা খাতে ঘুষ-দুর্নীতি বন্ধ হবে কবে? কেন সাংবাদিক নির্যাতন? সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত্যুর সর্বোচ্চ সাজা ৫ বছরের জেল রূপগঞ্জে গাজা ও ইয়াবাসহ শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার আসামের তালিকা নিয়ে বাংলাদেশের দুশ্চিন্তার কোনো কারণ নেই: ভারতীয় হাইকমিশনার প্রধানমন্ত্রী বললে পদত্যাগ করব : নৌমন্ত্রী শিশুরা আমাদের চোখ-কান খুলে দিয়েছে : মনিরুল শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নিলেন প্রধানমন্ত্রী তারকারা রাস্তায় পুলিশের নামে মামলা দিতে সার্জেটকে বাধ্য করলো শিক্ষার্থীরা আন্দোলনও থামুক; সড়কও নিরাপদ হউক দু:স্থদের মাঝে বিসিএস পুলিশ পরিবারের ঈদ বস্ত্র বিতরণ ৬ কারণে বিশ্বকাপ জিতবে ব্রাজিল সবার জন্য স্বাস্থ্য প্রধানমন্ত্রীর কানাডা সফর ৬ জুন  দ্রব্যমূল্য বাড়ার মাস কী রমজান! সবকিছু স্বপ্নের মতো মনে হচ্ছে লিখিত স্থগিতাদেশ পেলে গাজীপুর সিটি নির্বাচনের জন্য আপিল করা হবে : অ্যাটর্নি জেনারেল সৌহার্দ্যপূর্ণ আন্তঃবাহিনী সম্পর্ক বজায় রাখার আহবান আইজিপির গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচন ২৬ জুন বিজ্ঞানমনস্ক জ্ঞানভিত্তিক সমাজ বিনির্মানে শিক্ষকদের ভূমিকা শীর্ষক কর্মশালা নির্বাচনী মাঠে একঝাঁক তরুণ মনোনয়নপ্রত্যাশী দলের নয়, কাজের লোককে ভোট দিন: ওবায়দুল কাদের খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা আগের চেয়েও উদ্বেগজনক নির্বাচনী প্রচারণায় ঘুম নেই ঢাকা দক্ষিনের প্রার্থীদের


মস্তিষ্ক সম্পর্কে শতাধিক নতুন তথ্য পেলেন বিজ্ঞানীরা

এক্সক্লুসিভ, ছবি স্লাইড, বিজ্ঞান প্রযুক্তি, সকল শিরোনাম | ১৯ শ্রাবণ ১৪২৩ | Wednesday, August 3, 2016

---মস্তিষ্ক মানবদেহের জটিলতম অংশ। বিজ্ঞান এখনও মস্তিষ্ক সম্পর্কে পুরোপুরি জানতে নিরন্তর প্রচেষ্ঠা চালিয়ে যাচ্ছে। তারই অংশ হিসেবে মানুষের মস্তিষ্কের ‘সেরিব্রাল কোরটেক্স’-এ ১০০টি নতুন স্থানের খোঁজ পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। মানুষের মস্তিষ্ককে সাধারণত তিন ভাগে ভাগ করা হয়েছে। একটা অংশের নাম ‘ফোরব্রেইন’। দ্বিতীয় অংশটির নাম ‘মিডব্রেন’ এবং তৃতীয়টির নাম ‘হিন্ডব্রেইন’। এর মধ্যে ‘ফোরব্রেন’ মূলত ‘সেরিব্রাল কোরটেক্স’-এর একাধিক লেয়ার নিয়ে গঠিত। মস্তিস্কের এই অংশ মূলত উচ্চক্ষমতাসম্পন্ন। ‘সেরিব্রাল কোরটেক্স’ প্রধাণত আমাদের অনুধাবন ক্ষমতা থেকে শুরু করে আমাদের শরীরের বিভিন্ন মুভমেন্ট-সহ বেশ কিছু ক্রিয়া-প্রতিক্রিয়াকে নিয়ন্ত্রণ করে। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- যে কোন সমস্যার সমাধান।

মস্তিষ্কের এই অংশকে মূলত স্নায়ু টিস্যুর বহিরাবরণ বলা হয়। এটা দেখতে অনেকটা থকথকে এবং আয়তনে একটা ছোটখাটো পিৎজ্জার মতো। ‘সেরিব্রাল কর্টেক্স’-এর ঘনত্ব নিয়ে স্নায়ু বিশেষজ্ঞরা বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহ করেন। সেই তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা যায় এই কর্টেক্সের ঘনত্ব কোথাও ১ মিলিমিটার, আবার কোথাও এর ঘনত্ব ৪.৫ মিলিমিটার।

বিভিন্ন দিক থেকে এই কোরটেক্সের ছবিও সংগ্রহ করা হয়। দেখা হয় কীভাবে রক্ত প্রবাহ ঘিরে রেখেছে এই কোরটেক্সকে।

 এরজন্য কোরটেক্সের একটি ম্যাপিংও করা হয়। যার নাম এফএমআরআই। ওয়াশিংটন ইউনিভার্সিটির স্নায়ু বিশেষজ্ঞ দলের অন্যতম ম্যাথু গ্লেসার এর মতে, “কর্টেক্সের একটা অংশে নতুন সীমানা রয়েছে। রক্ত প্রবাহের সূত্র ধরে যত এগুনো যাচ্ছে ততই এই সীমানাটা বাড়ছে।” এতদিন ‘সেরিব্রাল কোরটেক্স’-এর সীমানা নিয়ে যে ধারণা ছিল তার সঙ্গে তুলনামূলক বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, নতুন যে সীমানার সন্ধান পাওয়া গেছে সে সম্পর্কে আগে কোন তথ্য ছিল না। কোরটেক্সের এই নতুন সীমানাকে বিভিন্নভাবে বিভক্ত করে শতাধিক নতুন স্থানের উপস্থিতি দেখা যায় যা আগে বিজ্ঞান জানত না। এই গবেষণা মানুষের মস্তিস্ক সম্পর্কে বিজ্ঞানীদের আরও সুক্ষ্ণাতিসুক্ষ্ণ ধারণা দেবে বলে মনে করা হচ্ছে।